শুক্রবার || ৬ ডিসেম্বর ২০১৯ || ১০:৪১:৫৬ অপরাহ্ন

conference

অপপ্রচার ও দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্র থেকে দেশের প্রাণিসম্পদ সেক্টরকে রক্ষার তাগিদ

প্রকাশ: বৃহস্পতিবার || নভেম্বর ৭ ২০১৯ || ৪:২২:৪২ PM

Share on Facebook   Share on Twitter   Leave Your Comment  Share via Email  Google Plus 

গত ২৪ অক্টোবর বৃহস্পতিবার রাজধানী ঢাকার খামারবাড়িস্থ কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন-এ বাংলাদেশ এনিমেল হাজবেন্ড্রী সোসাইটি (BAHS) কর্তৃক আয়োজিতAchievement of SDGs Through Livestock Production: role of Animal Husbandry Graduates শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মোঃ আশরাফ আলী খান খসরু এমপি। 

পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত এর মাধ্যমে শুরু হওয়া উক্ত সেমিনারে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব জনাব মোঃ জাকির হোসেন আকন্দ, অতিরিক্ত সচিব জনাব কাজী ওয়াসিউদ্দিন, ডিএলএস-এর মহাপরিচালক  ডাঃ হিরেশ রঞ্জন ভৌমিক, বিএলআরআই-এর মহাপরিচালক ডঃ  নাথুরাম সরকার, বিপিআইসিসির সভাপতি জনাব মশিউর রহমান, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ডঃ লুৎফুল হাসান, এনিমেল হাজবেন্ড্রী অনুষদের ডিন প্রফেসর ডঃ মোঃ নুরুল ইসলাম, বাংলাদেশ এনিমেল হাজবেন্ড্রী সোসাইটির বর্তমান সভাপতি জনাব মোঃ মাহবুব হাসানসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের পদস্থ কর্মকর্তাবৃন্দ সহ বিভিন্ন মিডিয়ার প্রতিনিধিগণ। 

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্বে ছিলেন নবনির্বাচিত বাংলাদেশ এনিমেল হাজবেন্ড্রী সোসাইটির সভাপতি কৃষিবিদ মাহবুব হাসান। উক্ত সেমিনারে মূল প্রবন্ধ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করেন কৃষিবিদ মোঃ গাউস খান এবং বাংলাদেশ এনিমেল হাজবেন্ড্রী সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক জনাব শাহাদাত হোসেন স্বাগত বক্তব্য রাখেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মোঃ আশরাফ আলী খান খসরু এমপি বলেন দেশি-বিদেশি নানা ষড়যন্ত্র ও অপপ্রচারের হাত থেকে প্রাণিসম্পদ সেক্টরকে রক্ষা করতে হলে উক্ত সেক্টরের সকলকে একসাথে কাজ করতে হবে। 

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কাজী ওয়াসিউদ্দিন বলেন, বহুদিন ধরে বাংলাদেশে পোল্ট্রি মাংস রপ্তানি করতে চাচ্ছে ব্রাজিল কিন্তু আমরা এদেশে কোন ধরনের মাংস আমদানি করব না বলে জানিয়ে দিয়েছি। দেশের প্রাণী সম্পদ নিয়ে দেশী-বিদেশী সকল চক্রান্তের বিরুদ্ধে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে বলে তিনি মনে করেন। সেমিনারের একপর্যায়ে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক হিরেশ রঞ্জন ভৌমিক বলেন, বাংলাদেশ মাংসে স্বয়ংসম্পূর্ণ। নিজেদের চাহিদা মিটিয়ে পণ্য এখন বিদেশে রপ্তানির চিন্তা করছি। আর আমাদের পোল্ট্রি সম্পদ নিয়ে দেশি-বিদেশি নানা ষড়যন্ত্র চলছে। আমরা যদি নিরাপদ খাদ্য তৈরি করতে পারি এবং উক্ত ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সতর্ক থাকতে পারি তবে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের পয়েন্টগুলো অর্জনে একসাথে এগিয়ে যেতে পারবো। 

অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডাঃ লুৎফুল হাসান তার বক্তব্যে বলেন, দেশের প্রত্যেকটি ফিড মিলগুলোতে দক্ষ পুষ্টিবিদ থাকতে হবে এবং প্রাণিসম্পদের সম্প্রসারণের জন্য সরকারের সকল কাজের জন্য এন্ট্রি লেভেল পোস্ট তৈরি করতে হবে। মানসম্মত খাদ্য তৈরি করতে পারলে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মানুষ বাংলাদেশের দিকে তাকিয়ে থাকবে। 

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের পশুপালন অনুষদের ডিন অধ্যাপক ডঃ মোঃ নুরুল ইসলাম বলেন, দেশের জনগণের নিরাপদ প্রোটিনের চাহিদা পূরণ করতে চাইলে এন্টিবায়োটিকের ব্যবহার থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। বিপিআইসিসির সভাপতি মসিউর রহমান বলেন, ডিভিএম এবং এএইচ গ্রাজুয়েটদের বিবাদ ভুলে সম্মিলিতভাবে কাজ করে ভোক্তাদের নিরাপদ খাদ্যের নিশ্চয়তা দিতে হবে। চাহিদার উপর ভিত্তি করে আগামী পাঁচ বছরে পোল্ট্রি কনজামশন দ্বিগুণ হবে বলে তিনি আশা করেন। 

উল্লেখ্য ২০৩০ সালের টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে হলে প্রাণিসম্পদ সেক্টরের সকলকে এক হয়ে দেশী-বিদেশী এই ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে।

Share on Facebook   Share on Twitter   Leave Your Comment  Share via Email  Google Plus 

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ


61, Joarsahara (1st floor), Dhaka-1000
Copyright © 2017 monthly Poultry Khamar Bichitra. All Right Reserved.