শুক্রবার || ৬ ডিসেম্বর ২০১৯ || ৯:৩৫:১৫ অপরাহ্ন

interview

মানসম্পন্ন উপকরণ দিয়েই ভাল ফিড তৈরি সম্ভব

প্রকাশ: সোমবার || মার্চ ১১ ২০১৯ || ১:৩০:৩৬ PM

Share on Facebook   Share on Twitter   Leave Your Comment  Share via Email  Google Plus 

বাংলাদেশের পোল্ট্রিসহ গবাদি প্রাণি ও মাছ উৎপাদনের অপার সম্ভবনাকে কাজে লাগাতে হবে। তবে এসব উৎপাদন প্রক্রিয়ার সাথে সরকারী ও বেসরকারী পর্যায়ে যেসব কাজকর্ম হয় সেগুলোর মধ্যে সমন্বয় সাধন করতে হয়। ফিড উপকরণের সিংহভাগ বিদেশ থেকে আমদানি করতে হয়। তাই আমদানির ক্ষেত্রে শুল্ক ও কর রেয়াতের মাধ্যমে প্রাণিজ প্রোটিন উৎপাদনশীলতায় বিপ্লব ঘটানো সম্ভব। এতে ব্যাপক কর্মসংস্থান ও দেশীয় প্রাণিজ আমিষের চাহিদা পূরণের পাশাপাশি বিদেশে হিমায়িত ও প্রক্রিয়াজাতকৃত মাছ-মাংস, ডিম দুধ রপ্তানীর দ্বার উন্মোচিত হবে।
 তাই বিপুল পরিমানে বৈদশিক মুদ্রা আয়ের সম্ভাসনাকে কাজে লাগাতে হবে। এর পূর্বে অবশ্য মাঠ পর্যায়ের ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক খামারীদের উৎপাদনশীলতা নিশ্চিত করতে দক্ষ জনবলে রূপান্তরিত করতে হবে। বিভিন্ন ফিড উপকরণ ও ঔষধপত্র যেন নি¤œ মানের না হয় তা নিশ্চিত করার উপরও গুরুত্ব দিতে হবে। ভাল ফিড তৈরির জন্য চাই ভালো মানের ফিড উপকরন।  
দেশে অ্যানিমেল হেলথ সেক্টর নিয়ে কাজ করে থাকে এমন প্রতিষ্ঠান অনেক বেশি নয়। তাই এসব প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিবিড় পর্যবেক্ষনের মাধ্যমে তারা যেমন সঠিক পথে ব্যবসা করতে পারে সে বিষয়ে সরকারী নীতিমালা প্রণয়ন করতে হবে। 
দেশের খাদ্য নিরাপত্তার সাথে পুষ্টি নিরাপত্তার প্রশ্নে অ্যানিমেল হেলথ কোম্পানীগুলো যেন মানসম্পন্ন পণ্য আমদানি ও বিপণন করে তদবিষয়ে প্রতিযোগিতামূলক পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে। এতে দেশে মান সম্পন্ন পুষ্টি পণ্যের উৎপাদন নিশ্চিত করা যাবে। কৃষক যদি তার উৎপাদিত পণ্যের ন্যায্য দাম না পায় তখন সে উৎপাদনের প্রতি আগ্রহ হারিয়ে ফেলে এক সময় ঐ পণ্য উৎপাদন বন্ধ করে দেয়। এটাই হচ্ছে স্বাভাবিক নিয়ম। পোল্ট্রি  উৎপাদনের ক্ষেত্রেও এ কথা সমভাবে প্রযোজ্য। 
খামারীরা ডিম ও ব্রয়লারের ন্যায্য দাম  পাচ্ছে না। খামারীরা দুরাবস্থায় থাকলে অ্যানিমেল হেলথ বিজনেস কোম্পানীগুলোও ভাল থাকবে না। অ্যানিমেল হেলথ কোম্পানীগুলো বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই মানসম্পন্ন পণ্য বিদেশ থেকে আমদানি করে থাকে। পণ্য আমদানির ক্ষেত্রে প্রায়ই নানান জটিলতার সম্মুখীন হতে হয়। এই জটিলতার মূল্য দিতে হয় খামারীদেরকেই। তাই খামারীদের স্বার্থের কথা চিন্তা করে এসব জটিলতা নিরসন হওয়া উচিৎ। ইব্রাতাস ট্রেডিং কোম্পানী দেশে ভালো মানের ফিড তৈরীর জন্য বিদেশ থেকে ভালো মানের ফিড উপকরণ আমদানি করে থাকে। 
ইব্রাতাস ট্রেডিং কোম্পানী একটি দ্রুতবর্ধনশীল আমদানি ভিত্তিক বিপণন কোম্পানি। বিশ^ব্যাপী প্রসিদ্ধ রপ্তানিকারক কোম্পানি থেকে ফিড তৈরির কাঁচামাল সংগ্রহ করে বাংলাদেশে বিপণন করে থাকে এটি। তিন প্রজন্ম ধরে সফলতার সাথে ব্যবসা পরিচালনা এবং সারা বিশে^র সুপরিচিত প্রস্তুতকারক ও সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান সমূহের সাথে ব্যবসা পরিচালনায় ইব্রাতাস ট্রেডিং কোম্পানি নিয়োজিত আছে। বর্তমানে ইব্রাতাস চারটি মহাদেশের বাণিজ্য অংশীদারদের নিয়ে কাজ করছে। আগামী দিনগুলোতে যা কিছু ভালো তার সাথে ইব্রাটাস ট্রেডিং কোম্পানী থাকবে।
 অ্যানিমেল ফিডের কাঁচামাল সরবরাহের ক্ষেত্রে দীর্ঘদিনের অর্জিত সুনামের ধারাবাহিকতায় দেশের প্রাণীজ পোটিন উৎপাদন সেক্টরে নিজেদের অবস্থানকে ইব্রাতাস  আরো সুসংহত করবে। 
 -কামাল আহম্মদ

Share on Facebook   Share on Twitter   Leave Your Comment  Share via Email  Google Plus 

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ


61, Joarsahara (1st floor), Dhaka-1000
Copyright © 2017 monthly Poultry Khamar Bichitra. All Right Reserved.